রাতে মারধর করল স্বামী, সকালে মিলল লাশ

প্রজন্ম ডেস্ক

গাজীপুর মহানগরীর টঙ্গীতে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় মাহমুদা আক্তার হীরা (২৫) নামে এক গৃহবধূর মরদেহ পাওয়া গেছে। সোমবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে টঙ্গীর খৈরতৈল পূর্বপাড়ায় বাবার বাড়ি থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত মাহমুদা আক্তার হীরা টঙ্গীর খৈরতৈল এলাকার মো. হানিফের মেয়ে। তার স্বামীর নাম কামরুল হাসান রাসেল। তিনি নোয়াখালীর সোনাইমুড়ির সোনাপুরের আব্দুল মান্নানের ছেলে।

নিহতের ছোট বোন ফাতেমা আক্তার জানান, রোববার (১৬ ফেব্রুয়ারি) রাতে হীরার সঙ্গে তার স্বামীর কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে স্বামী তাকে মারধর করে বাড়ি থেকে চলে যায়। পরে সকালে রুমের দরজা বন্ধ ও কোনো সাড়া শব্দ না পেয়ে দরজা ভেঙে হীরাকে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়। তাকে উদ্ধার করে সাতাইশ ইন্টারন্যাশনাল মেডিকেল কলেজে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও জানান, কামরুল হাসান রাসেল গত তিনমাস আগে মালয়েশিয়া থেকে ফিরেছেন। তিনি স্ত্রীসহ তার শ্বশুরবাড়িতে পরিবারের সঙ্গে বসবাস করতেন। ছয় বছর আগে রাসেলের সঙ্গে হীরার বিয়ে হয়। তাদের চার বছরের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে।

টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) আব্দুল মালেক জানান, মরদেহটি উদ্ধার করে সুরতহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দিন আহম্মেদ মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছে। নিহতের শরীরে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে।

মন্তব্য