পিরোজপুরে মুহুরী খুন, জেলের লাশ উদ্ধার

প্রজন্ম ডেস্ক

পিরোজপুর সদর উপজেলার শংকরপাশা এলাকায় আইনজীবী সহকারী (মুহুরী) সিদ্দিকুর রহমান খলিফাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষ। সোমবার সকাল ৮টার দিকে সদর উপজেলা শংকরপাশা ইউনিয়নের দক্ষিণ শংকরপাশা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত সিদ্দিকুর রহমান খলিফা ওরফে সিদ্দিক মুহুরী (৬০) সদর উপজেলার শংকরপাশা ইউনিয়নের দক্ষিণ শংকরপাশা গ্রামের মৃত কাসেম আলী খলিফার ছেলে। তিনি পিরোজপুর জেলা আদালতের আইনজীবী সহকারী হিসেবে কাজ করতেন এবং শংকরপাশা ইউনিয়ন পরিষদের ৪নং ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য ছিলেন।

নিহতের বেয়াই শহিদুল ইসলাম খলিফা জানান, সকালে জেলা জজ কোর্টে যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়ে কিছু দূরে আসার পরই সন্ত্রাসীরা মোটরসাইকেলে এসে সিদ্দিকুর রহমান খলিফকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। এ সময় তার ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে সিদ্দিকুরের ছেলে রিপন খলিফাসহ স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাক্তার মৃত ঘোষণো করেন।

পিরোজপুরের পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান জানান, পারিবারিক ও জমি সংক্রন্ত বিরোধের জের ধরেইে এই ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।

এদিকে পিরোজপুরের ইন্দুরকানী উপজেলায় আবুল হোসেন খাঁ নামের এক জেলের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে উপজেলার বালিপাড়া ইউনিয়নের চর বলেশ্বর গ্রামের একটি মাঠ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

ইন্দুরকানী থানার ওসি মো. হাবিবুর রহমান জানান, সকালে সংবাদ পাওয়ার পরপরই পুলিশ একটি মাঠ থেকে গালায় মাফলার পেঁচানো অবস্থায় জেলে আবুল হোসেন খাঁর লাশ উদ্ধার করে। এটি হত্যা না আত্মহত্যা সে বিষয়ে তদন্তের পর বলা যাবে।

মন্তব্য