দুইদিন আগে নির্বাচন স্থগিত করা ঠিক হবে না : আব্দুর রহমান

প্রজন্ম ডেস্ক

নির্বাচনের মাত্র দুই দিন আগে ঢাকা-১০ আসনের উপনির্বাচন স্থগিত করা বুদ্ধিমানের কাজ হবে না বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও ঢাকা-১০ আসনের উপনির্বাচনের দলের প্রধান সমন্নয়ক আব্দুর রহমান।

বুধবার ঢাকা-১০ আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীর শফিকুল ইসলাম মহিউদ্দিনের ইশতেহার ঘোষণা শেষে সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

আব্দুর রহমান বলেন, নিবার্চনে একটি প্রস্তুতির ব্যাপার আছে। তা ছাড়া যে কোনো নির্বাচনে অর্থ-কড়িরও একটা ব্যাপার থাকে। সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করে প্রার্থীরা ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট চেয়েছেন। করোনাভাইরাসের কারণে আমরা ভোটের জনসভা স্থগিত করেছি।

এই আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, করোনার কারণে দেশের সব স্কুল-কলেজ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। কিন্তু ভোটের ব্যাপার হলো প্রচারণা, মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট চাওয়া। ভোটের সব প্রস্তুতি শেষ হয়েছে। তাই এ মুহুর্তে নির্বাচন স্থগিত করা বুদ্ধিমানের কাজ হবে না। তারপরেও নির্বাচন কমিশনকে সব ক্ষমতা দেয়া হয়েছে। তারা স্বাধীন একটি প্রতিষ্ঠান, তারা তাদের বিষয় বিবেচনা করবে। তাদের স্বাধীন সিদ্ধান্ত নেয়ার নিজস্ব ক্ষমতা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ইসি স্বাধীন তারা যে কোনো পদক্ষেপ নিতে পারে। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে যে সব সতর্কতামূলক বিষয় ছিলো সেগুলো মেনেই প্রচারণা করা হয়েছে। ভোটের সব প্রস্তুতি গ্রহণ শেষ হয়েছে।

এর আগে যে মেয়র নির্বাচন হয়েছে সেখান থেকে শিক্ষা নেয়া হয়েছে, ভোটার উপস্থিত কেনো কম হয়েছে এ বিষয়ে বিশ্লেষণ করা হয়েছে। এ জন্য এই নির্বাচনে যানবাহন চলাচল বন্ধ করা হবে না। এছাড়া আরও কিছু ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। যাতে মানুষ ঠিক মতো ভোট দিতে আসতে পারে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা-১০ আসনের উপনির্বাচনের আওয়ামী মনোনীত প্রার্থী শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমদ মন্নাফি, সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির মোর্শেদ কামাল, মেজবাউর রহমান রতন প্রমুখ।

মন্তব্য