ট্রাকের ১৩০ যাত্রীকে কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ

প্রজন্ম ডেস্ক

করেনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সারা দেশে গণপরিবহন বন্ধ। তবে, মানুষের যাতায়াত একেবারে থেমে নেই। শত শত মানুষ ট্রাকসহ অন্যান্য পণ্য পরিবহনের গাড়িতে যাতায়াত করছেন।

শনিবার (১১ এপ্রিল) সকালে ঝিনাইদহের বিষয়খালি এলাকায় চারটি ট্রাকে থাকা ১৩০ জন নারী-পুরুষকে আটক করেছে পুলিশ। তাদেরকে কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ট্রাকের কাগজপত্র জব্দ করা হয়েছে।

টাঙ্গাইলের বিভিন্ন ইটভাটায় কাজ করা এসব শ্রমিক ট্রাকে করে ত্রিপলের নিচে লুকিয়ে সাতক্ষীরায় যাচ্ছিলেন।

ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান জানিয়েছেন, করোনাভাইরাস ঠেকাতে সামাজিক দূরত্ব রক্ষা ও ঘর থেকে বের না হওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। অথচ এ সময়ে মানুষ ট্রাকে গাদাগাদি করে ভ্রমণ করছেন। আজ সকালে সদর উপজেলার বিষয়খালিতে ১৩০ জনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। তাদের সবাইকে সচেতন থাকার পরামর্শ দিয়ে সাতক্ষীরা জেলা পুলিশকে অবহিত করে ছেড়ে দেওয়া হয়। তাদের কাছ থেকে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে থাকার মুচলেকা নেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য