করোনায় অনলাইন লুডু খেলে বন্ধুত্ব গাঢ় হচ্ছে ভারতীয় ক্রিকেটারদের

প্রজন্ম ডেস্ক

বেশ কয়েকবছর ধরেই অনলাইন লুডু গেমস বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে তরুণ-যুবক সমাজের কাছে। সবাই একসঙ্গে না থাকলেও মোবাইলের মাধ্যমে যে যার যার জায়গায় থেকেই খেলতে পারেন লুডু। ফলে সবার কাছেই এর চাহিদা অনেক।

করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউন অবস্থায় এই অনলাইন লুডুর শরণাপন্নই হয়েছেন ভারতীয় নারী দলের ক্রিকেটাররা। নিজেদের অলস সময় কাটানোর জন্য দলের ক্রিকেটাররা মিলে অনলাইনে খেলছেন লুডু। যা তাদের নিজেদের মধ্যকার বন্ধুত্ব আরও গাঢ় করছে বলে জানিয়েছেন তারকা ওপেনার স্মৃতি মান্ধানা।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রকাশিত এক ভিডিওবার্তায় মান্ধানা বলেন, ‘আমরা সব বন্ধুরা একসঙ্গে অনলাইনে লুডু খেলি। যা আমাদের বন্ধনটা আগের মতোই রাখছে। সব টিমমেটরা একসঙ্গেই থাকছি।’

তবে তাই বলে শুধু লুডু খেলেই সময় কাটিয়ে দিচ্ছেন মান্ধানা, এমনটাও নয়। নিজেকে ফিট রাখার জন্য ট্রেনিংয়ের পাশাপাশি ঘরের কাজও করছেন এ ওপেনার। তিনি বলেন, ‘ফিট থাকা গুরুত্বপূর্ণ। তাই আমি ওয়ার্ক আউট করছি। আমাদের ট্রেইনারের সঙ্গে কথা বলি নিয়মিত। কী কী করতে হবে তা সে জানিয়ে দেয়।’

‘এছাড়া আরেকটা জিনিস হলো, আমি পরিবারের সঙ্গে সময় কাঁটাতে খুব পছন্দ করি। আমরা একসঙ্গে তাস খেলি। রান্নার সময় নিয়মিতই মাকে সাহায্য করি। এখন তো থালাবাসন ধোয়া আমার নিত্য রুটিনে পরিণত হয়েছে। আমার ভাইকে জ্বালাতনও খুব পছন্দ করি। এতে অনেক মজা পাই।’

এর বাইরেও কী করেন মান্ধানা? বলতে থাকেন, ‘তৃতীয় বিষয়টা হলো, আমি সিনেমা দেখতে ভালোবাসি। আমাকে সিনেমাপোকাও বলতে পারেন। প্রতি সপ্তাহে অন্তত ২-৩টি সিনেমা আমি দেখবোই। তবে এর বেশি নয়। কারণ এতে বদ অভ্যাস হয়ে যেতে পারে। আমি আমার পরিবারের সঙ্গে ভালোবাসি। ঘরে থাকলে সবচেয়ে বেশি ভালো লাগে ঘুমিয়ে থাকতে। প্রতিদিন অন্তত ১০ ঘণ্টা ঘুম আমি নিশ্চিত করি।’

মন্তব্য