মাস্ক থুতনিতে নামালে যে বিপদ

প্রজন্ম ডেস্ক

এ বছরের মার্স মাসে করোনাভাইরাসকে মহামারি হিসেবে ঘোষণা দেওয়া হয়। এরপর ফেস মাস্ক পরার বিষয়টি সবচেয়ে বিতর্কিত বিষয়গুলোর একটি হয়ে উঠে। বর্তমানে বিশ্বের বেশিরভাগ দেশে ঘরের বাইরে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। যুক্তরাজ্যে আগামী ২৪ জুলাই থেকে দোকানের ভেতরেও মাস্কের ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

যা হোক, স্বাস্থ্য সচেতন মানুষ হিসেবে আপনি নিশ্চয় মাস্ক পরেন। কিন্তু মাস্ক শুধু পরলেই হবে না মাস্কের নানা স্বাস্থ্যবিধিও মেনে চলাটাও গুরুত্বপূর্ণ। ইংল্যান্ডের ইস্ট মিডল্যান্ডস অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস কর্তৃপক্ষ মাস্কের নতুন একটি স্বাস্থ্যবিধির তথ্য প্রকাশ করেছে। আর তা হলো, মাস্ক কখনোই থুতনিতে নামিয়ে রাখা উচিত নয়।

অনেককেই দেখা যায়, খাবার খাওয়া বা পানীয় পান করার সময় কিংবা কথা বলার সময় মাস্ক থুতনিতে থামিয়ে রাখেন। বিশেষজ্ঞদের মতে, এই অভ্যাস করোনা সংক্রমণের ঝুঁকিতে ফেলতে পারে। ইস্ট মিডল্যান্ডস অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস কর্তৃপক্ষ একটি সহজ গ্রাফিকের পোস্ট করে বিষয়টির ব্যাখ্যা দিয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে সংস্থাটি লিখেছে, ‘আপনার মাস্ককে থুতনিতে নামিয়ে না রাখার গুরুত্ব ব্যাখ্যা করতে এই গ্রাফিক সহায়তা করবে। হয় মাস্ক পরে থাকুন কিংবা পুরোপুরি খুলে ফেলুন- কিন্তু থুতনিতে নামিয়ে রাখবেন না।’

গ্রাফিকটিতে প্রকাশ পেয়েছে যে, মাস্ক পরে আপনার নাক ও মুখ ঢাকা থাকার সময় গলা উন্মুক্ত থাকে। যার মানে, ভাইরাসযুক্ত কোনো ফোঁটা আপনার গলায় পড়তে পারে। এতে মাস্ক থুতনিতে নামিয়ে রাখার সময় মাস্কের ভেতরের অংশটি ভাইরাসে দূষিত হতে পারে। সুতরাং আপনি যখন আবার মাস্ক থুতনি থেকে টেনে মুখের ওপর পড়বেন, তখন এতে লেগে থাকা ব্যাকটিরিয়া, জীবাণু এবং ভাইরাসে সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি থাকে।

ইস্ট মিডল্যান্ডস অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস কর্তৃপক্ষের পরামর্শে বলা হয়েছে, খাবার খাওয়া, পানীয় পান, কথা বলা বা অন্য কোনো কাজে মাস্ক মুখ থেকে সরানোর প্রয়োজন হলে, পুরোপুরি খুলে ফেলা উচিত।

মন্তব্য