যশোরে মাদ্রাসায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে শিক্ষক গ্রেফতার

শিশু ধর্ষন

প্রজন্ম রিপোর্ট

যশোরের বেনাপোলে ৫ বছর বয়সী এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে সালমান ফারসি (২৩) নামে মাদ্রাসা শিক্ষককে গ্রেফতার করা হয়েছে। বেনাপোল পোর্ট থানার ইনসপেক্টর রাসেল সরোয়ার ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেছেন, শিশুটি এখন যশোর জেনারেল হাপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। হাসপাতালে শিশুটির পাশে থাকা তার দাদি জানান, রবিবার মেয়েটি বেনাপোলের দারুস সালাম কওমি মাদ্রাসায় যায়। বেলা ১২টার দিকে মাদ্রাসা শিক্ষক সালমান ফারসি অন্য শিশুদের ছুটি দিয়ে কেবল তার পৌত্রীকে ক্লাসে রাখেন। এরপর তাকে ধর্ষণ করা হয়।

এতে শিশুটির রক্তক্ষরণ হয়। সে বাড়িতে ফিরে জানায়, নতুন হুজুর তার সাথে খারাপ কাজ করেছে। এরপর থানা পুলিশের সহায়তায় তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) আরিফ আহমেদ জানান, শিশুটির নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এখন তার অবস্থা ভাল। রিপোর্ট পাওয়ার পরই বিস্তারিত জানা যাবে। এদিকে, শিশু ধর্ষণের ঘটনায় গেল রাতেই বেনাপোল পোর্ট থানায় একটি মামলা হয়েছে। ইনসপেক্টর (ওসি তদন্ত) রাসেল সরোয়ার বলেন, রাতেই মাদ্রাসা শিক্ষক সালমান ফারসিকে গ্রেফতার করা হয়। সোমবার তাকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। সালমান ফারসি বেনাপোল পোর্ট থানাধীন ছোটআঁচড়া মাঠপাড়া এলাকার মাওলানা আবু হোসেনের ছেলে।

মন্তব্য