পঞ্চগড়ে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা, বেড়েছে শীতের তীব্রতা

প্রজন্ম ডেস্ক

হিমালয়ের হিম বাতাসের কারণে ক্রমাগত হ্রাস পাচ্ছে পঞ্চগড়ের তাপমাত্রা। কয়েকদিন পর পরই দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হচ্ছে এ জেলায়।

মঙ্গলবার (১৭ ডিসেম্বর) সকালে পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারে সর্বনিম্ন

তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ১২.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এর আগে গত রবিবার (১৫ ডিসেম্বর) তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছিল ৮.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

সরেজমিনে দেখা যায়, সকাল থেকেই ঘন কুয়াশার চাদরে আচ্ছন্ন হয়ে পড়েছে পুরো পঞ্চগড়

জেলা। হিমেল বাতাস ও শীতের তীব্রতার কারণে সাধারণ মানুষ পড়েছে চরম বিপাকে।

তেঁতুলিয়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের বাসিন্দা রাজ্জাক মিয়া বলেন, ‘আজ ফের শীতের তীব্রতা বাড়ছে। এর ফলে আমরা সাধারণ মানুষ পড়েছি চরম দুর্ভোগে।’

একই কথা জানালেন পঞ্চগড় সদর উপজেলার আমতলা এলাকার বাসিন্দা আ. রহিম। তিনি

বলেন, ‘আমরা ঠান্ডার কারণে কাজকর্ম ভালো করে করতে পারছি না। তবে আজ অন্যান্য দিনের তুলনায় শীতের তীব্রতা অনেক বেশি।

আবহাওয়া অফিসের তথ্যমতে, হিমালয়ের পাদদেশে পঞ্চগড় অবস্থিত হওয়ায় দেশের অন্যান্য

জেলার তুলনায় এ জেলায় সর্বপ্রথম শীতের আগমন ঘটে। পুরো মৌসুমে শীতের তীব্রতা তুলনামূলক বেশি থাকে।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রহিদুল ইসলাম বলেন, ‘আজ

সকালে পঞ্চগড়ে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১২.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। শীত মৌসুমের পরও এ জেলায় ঠান্ডা পড়ে।’

মন্তব্য